শনিবার (৩ অক্টোবর) নাটোরের সিংড়ায় আত্রাই নদীতে সৌঁতিজাল উচ্ছেদে অংশ নিলেন আইসিটি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক এমপি, জেলা প্রশাসক মো. শাহরিয়াজ, পুলিশ সুপার লিটন কুমার সাহা, উপজেলা নির্বাহী অফিসার নাসরিন বানু প্রমুখ। ছবি: আবু জাফর সিদ্দিকী

বিশেষ প্রতিবেদক: নাটোরের সিংড়ায় আত্রাই নদীর বিভিন্ন পয়েন্টে সৌঁতিজাল স্থাপন করায় নদী তীরবর্তী মানুষের ক্ষয়ক্ষতি এবং বন্যায় প্লাবিত হয়। সর্বশেষ বাঁধ ধ্বসে ঘরবাড়ি নদীগর্ভে বিলীন হয়। এমন পরিস্থিতিতে আত্রাই নদীতে সৌঁতি উচ্ছেদে জেলা ও উপজেলা প্রশাসনকে সাথে নিয়ে সৌঁতি উচ্ছেদে অংশ নিয়েছেন আইসিটি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক এমপি।

শনিবার (৩ অক্টোবর) তিনি প্রায় ২০ টি নৌকা যোগে শত শত নেতাকর্মী ও প্রশাসনের অংশগ্রহণে সৌঁতি অভিযানে নামেন। সিংড়া থেকে বিলদহর পর্যন্ত তাঁর নেতৃত্বে সৌঁতি জাল উদ্ধার এবং বাঁধ অপসারণ করা হয়। এসময় উপস্থিত ছিলেন জেলা প্রশাসক মো. শাহরিয়াজ, পুলিশ সুপার লিটন কুমার সাহা, উপজেলা নির্বাহী অফিসার নাসরিন বানু প্রমুখ।

উল্লেখ্য, আত্রাই নদীর অব্যাহত পানি বৃদ্ধির কারণে সিংড়া পৌর এলাকা প্লাবিত হয়। বুধবার সকালে পৌর এলাকার শোলাকুড়া বাঁধ ভেঙ্গে ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতি হয়। প্রায় ১৫ টি ঘরবাড়ি ধ্বসে যায়। এতে নি:স্ব হয়ে পড়েছে এসব পরিবার। সৌতি জালের কারনে পানির প্রবাহ বাধাগ্রস্ত হওয়ার কারণে বাঁধ ভেঙ্গে গেছে। তাছাড়া নদীর শাখা, প্রশাখা বাঁধ দেয়ায় নদীর পানির এবার বিপদসীমার ১১১ সে: মি: উপর দিয়ে প্রবাহিত হয়েছে। এজন্য সৌঁতির বিরুদ্ধে অভিযান যৌক্তিক।

কৃতজ্ঞতা: আবু জাফর সিদ্দিকী