নিউজ ডেস্ক: চলচ্চিত্র প্রযোজক, পরিচালক ও চিত্রনায়ক মাসুদ পারভেজ ওরফে সোহেল রানা জাতীয় পার্টি (জাপা) থেকে পদত্যাগ করেছেন। সোমবার (১২ অক্টোবর) রাতে সোহেল রানা নিজেই বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

এর আগে শনিবার (১০ অক্টোবর) জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান জিএম কাদের বরারব ডাকযোগে পাঠানো এক চিঠিতে তিনি তার পদত্যাগের সিদ্ধান্তের কথা জানান। এর আগে, ২০০১ সালে চলচ্চিত্রের আরেক শক্তিমান অভিনেতা আহমেদ শরিফও জাতীয় পার্টিতে যোগদান করেছিলেন। এরপর এক বছরের মধ্যে তিনিও পদত্যাগ করেন।

সোহেল রানা বলেন, জাতীয় পার্টির প্রেসিডিয়াম মেম্বার, জাতীয় সাংস্কৃতিক পার্টির কেন্দ্রীয় সভাপতিসহ জাতীয় পার্টির সকল পর্যায়ের কমিটি থেকে আমি পদত্যাগ করেছি।

তিনি আরো বলেন, পদত্যাগের অনেকগুলো কারণ থাকলেও সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ হচ্ছে, তৃণমূলের কর্মীদের যথাযথ মূল্যায়ন না করা ও দেশজুড়ে নিবেদিতপ্রাণ নেতাদের অবমূল্যায়ন, দুর্বল সাংগঠনিক কার্যক্রমসহ পার্টির নানা হটকারি সিদ্ধান্ত আমাকে ব্যথিত করেছে। অনেক হয়েছে আর নয়, সন্মান নিয়ে আছি- থাকতে চাই। তবে এ দলের সাথে আর নয়, গুডবাই।

এদিকে সো‌হেল রানার পদত‌্যাগ বিষ‌য়ে জাতীয় পা‌র্টির চেয়ারম‌্যান গোলাম মোহাম্মদ কা‌দের ব‌লেন, চি‌ঠি আমার হা‌তে আ‌সে‌নি, বিষয়টা আ‌মি জা‌নিও না। সো‌হেল রানা দীর্ঘ‌দিন ধ‌রে জাপার রাজনী‌তি‌তে নি‌স্ক্রিয় ব‌লেও জানান তি‌নি।

প্রসঙ্গত, মাসুদ পারভেজ ছাত্রজীবন থেকে ছাত্রলীগের রাজনীতির সঙ্গে সম্পৃক্ত। ছিলেন ঢাবির ইকবাল হলের নির্বাচিত ভিপি। তিনি জাতীয় পা‌র্টির প্রতিষ্ঠাতা চেয়ারম‌্যান হু‌সেইন মুহম্মদ এরশাদের হাত ধ‌রে ২০০৯ সালে দলটিতে যোগ দেন। তা‌কে এরশাদের নির্বাচন বিষয়ক উপদেষ্টা ও প্রেসিডিয়াম সদস‌্য করে।

১৯৪৭ সালের ২১ ফেব্রুয়ারি মাসুদ পারভেজের জন্ম। বাংলা চলচ্চিত্র অভিনয়ে নতুন একটি ধারা সৃষ্টির মূল কারিগর তিনি। তার হাত ধরে কয়েক ডজন শিল্পী-কলাকুশলী চলচ্চিত্র জগতে প্রথম পা রাখেন। চলচ্চিত্রে নায়ক হিসেবে আত্মপ্রকাশ করেন সোহেল রানা নাম ধারণ করে।

১৯৭২ সালে মাসুদ পারভেজ বাংলাদেশের প্রথম পূর্ণাঙ্গ মুক্তিযুদ্ধের চলচ্চিত্র ওরা ১১ জন ছবির প্রযোজক হিসেবে চলচ্চিত্র জগতে প্রবেশ করেন। এটি পরিচালনা করেন চাষী নজরুল ইসলাম। বাংলাদেশের চলচ্চিত্র শিল্পে তার অসামান্য অবদানের জন্য বাংলাদেশ সরকারের কাছ থেকে তিনি তিনবার জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার লাভ করেন।

৯০ এ দশকের জনপ্রিয় এই চিত্রনায়ক ডা. জিনাত বেগমকে বিয়ে করেন। তাদের একমাত্র ছেলে মাশরুর পারভেজ জীবরান। অভিনেতা মাসুম পারভেজ রুবেল তার ছোট ভাই। এছাড়া সোহেল রানা বাংলাদেশ চলচ্চিত্র পরিচালক সমিতি ও বাংলাদেশ চলচ্চিত্র প্রযোজক পরিবেশক সমিতির সাবেক সভাপতি। তার প্রযোজনা সংস্থার নাম পারভেজ ফিল্মস।