নিউজ ডেস্ক: নাটোরের আলোচিত সেই রুপা খাতুন ওরফে রুপকে গ্রেপ্তার করেছে সদর থানা পুলিশ। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন নাটোরের পুলিশ সুপার লিটন কুমার সাহা।

সোমবার (১৪ সেপ্টেম্বর) সকাল ১০ টায় তাকে শহরের উপরবাজার এলাকার নিজ বাড়ি থেকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। এর আগে ঘটনায় গত ২৯ আগস্ট মৌয়ের মা সুফিয়া বেগম বাদী হয়ে রুপা খাতুনসহ তার পরিবারের ৪ জনকে অভিযুক্ত করে হত্যা মামলা করেন।

বিষয়টি নিশ্চিত করে নাটোরের পুলিশ সুপার লিটন কুমার সাহা বলেন, রুপাকে গ্রেপ্তারের পর দুপুরেই আদালতের মাধ্যমে জেল হাজতে প্রেরণ করা হয়েছে। অন্য অভিযুক্তদের গ্রেপ্তারর চেষ্টা হচ্ছে বলেও জানান তিনি।

প্রসঙ্গত, এর আগে নাটোর সদর থানার পরিদর্শক (তদন্ত) আব্দুল মতিন জানান, রুপা খাতুন তার ছোট বনের ননদ শহরের চৌধুরী বড়গাছা এলাকার আব্দুল কুদ্দুসের মেয়েকে সাদিয়া ইসলাম মৌকে ২১ আগস্ট রাতে নিয়ে পালিয়ে যায়। রুপা খাতুন গত ২৪ আগস্ট মৌকে শহরের উপর বাজারে নিজ বাড়িতে আনে। ওই সকালে মৌকে গ্যাস ট্যাবলেট (ইদুর মারা বিষ) খাওয়ানো অবস্থায় তাদের উদ্ধার করে তার পরিবারের পরিবারের সদস্যরা। এর কিছুক্ষণ পর রুপা খাতুনকেও বিষ খাওয়ানো অবস্থায় উদ্ধার করে তার পরিবারের সদস্যরা। দু’জনকেই রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেয়া হলে সেখানে মারা যান সাদিয়া ইসলাম মৌ।