ছবি: প্রতীকী

নিউজ ডেস্ক: নীলফামারীর সৈয়দপুরে বিজিবি সদস্য আক্তারুজ্জামানের (৩০) বিরুদ্ধে চাচাতো বোনকে (১৫) ধর্ষণের অভিযোগ উঠেছে। বিষয়টি নিশ্চিত করে সৈয়দপুর সার্কেলের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার অশোক কুমার।

শুক্রবার (২০ নভেম্বর) সন্ধ্যায় এ ঘটনায় দুইজনকে আটক করে থানায় নিয়ে এসেছে পুলিশ। এর আগে গত ৯ নভেম্বর ধর্ষণের ঘটনা ঘটে।

পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, গত ৯ নভেম্বর আপন চাচাতো বোনকে (১৫) নিয়ে বিজিবি সদস্য আক্তারুজ্জামান তার বোনের সদ্য হওয়া সন্তানকে দেখতে শহরে আসেন। ওইদিন রাতে উপজেলার বাঙালিপুর ইউনিয়নের লক্ষণপুর বালাপাড়া গ্রামে বাড়ি ফেরার পথে আক্তারুজ্জামান তার চাচাতো বোনকে ধরে নিয়ে আর্মি বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের কাছে ধানক্ষেতে নিয়ে জোর করে ধর্ষণ করেন। এতে ওই স্কুলছাত্রী অসুস্থ হয়ে পড়লে তাকে প্রথমে নীলফামারী আধুনিক হাসপাতাল পরে রংপুর মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়। বর্তমানে ওই স্কুলছাত্রী সেখানে চিকিৎসাধীন।

লক্ষণপুর স্কুল অ্যান্ড কলেজের অধ্যক্ষ রেজাউল করিম জানান, নবম শ্রেণিতে পড়ুয়া মেয়েটি অত্যন্ত মেধাবী। সে পঞ্চম ও অষ্টম শ্রেণিতে বৃত্তি পেয়েছিল।

বিষয়টি নিশ্চিত করে সৈয়দপুর সার্কেলের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার অশোক কুমার পাল জানান, বিষয়টি গুরুত্ব সহকারে খতিয়ে দেখা হচ্ছে। তদন্ত শেষ না হওয়া পর্যন্ত কিছু বলা যাচ্ছে না। এ ঘটনায় জিজ্ঞসাবাদের জন্য সংগ্রাম ও পারুল নামে ২ জনকে আটক করে থানায় আনা হয়েছে বলেও জানান তিনি।