নিউজ ডেস্ক: সৌদি আরবে পাচারের সময় হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর রপ্তানি কার্গো ভিলেজ থেকে প্রায় ৩৯ হাজার পিস ইয়াবা জব্দ করা হয়েছে। এর আনুমানিক বাজারমূল্য প্রায় এক কোটি ১৬ লাখ টাকা।

শুক্রবার (১৬ অক্টোবর) সকালে এই তথ্য জানানো হয়। এর আগে বৃহস্পতিবার রাত ১০টার দিকে ৩৮ হাজার ৯০০টি ইয়াবা জব্দ করে বিমানবন্দরের নিরাপত্তা বাহিনী এভসেক। গার্মেন্টস পণ্যের ভেতরে এসব ইয়াবা লুকিয়ে রাখা ছিল।

গোপন সংবাদের ভিত্তিতে ঢাকা কাস্টম হাউজের প্রিভেন্টিভ দল ও সিভিল এভিয়েশনের যৌথ অভিযানে ঢাকা কাস্টম হাউজের ডেপুটি কমিশনার (প্রিভেন্টিভ) মোহাম্মদ মারুফুর রহমান বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

তিনি জানান, রপ্তানি কার্গোর নিরাপত্তা স্ক্রিনিংয়ের সময় বিমানবন্দরের এভসেক সদস্যরা গার্মেন্টস পণ্যের সঙ্গে আনুমানিক ৩৮ হাজার ৯০০টি ইয়াবা জব্দ করেন। বিল অব এক্সপোর্ট অনুযায়ী পণ্য চালানের রফতানিকারক এমএস সিয়াম অ্যান্ড সমি এন্টারপ্রাইজ এবং ঠিকানা ব্যবহার করা হয়েছে খিলগাঁও পশ্চিমপাড়া। আর আমদানিকারক হিসেবে লেখা রয়েছে সৌদি আরবের অ্যাপারিজ ইন্টারন্যাশনাল ইস্ট, যেখানে ঠিকানা দেয়া হয়েছে রিয়াদের আল ওয়াজির ট্রেডিং সেন্টার।

মারুফুর রহমান আরো জানান, পণ্য চালানটি আটকের পর মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদফতরকে জানানো হলে তাদের প্রতিনিধি এসে ইয়াবার বিষয়টি নিশ্চিত করেন। এ বিষয়ে কাস্টম এবং মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনে মামলার বিষয়টি প্রক্রিয়াধীন রয়েছে। এ ঘটনায় সংশ্লিষ্ট কাউকে এখনও আটক করা সম্ভব হয়নি। এ ঘটনায় কাস্টমস ও মাদকদ্রব্য আইনে মামলার প্রক্রিয়া চলছে বলেও জানান তিনি।