নিউজ ডেস্ক: দিনাজপুরের বিরামপুরে সাত জুয়াড়িকে আটক করেছে পুলিশ। পরে ভ্রাম্যমান আদালতে ছয় জুয়াড়িকে একমাস ও একজনকে সাতদিন বিনাশ্রম কারাদণ্ড দিয়েছেন ভ্রাম্যমান আদালত। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন বিরামপুর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মো. মনিরুজ্জামান মনির।

বৃহস্পতিবার (১৫ অক্টোবর) নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট ও উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা পরিমল কুমার সরকার এই কারাদণ্ড দেন। এর আগে বুধবার রাতে পৌর শহরের পূর্ব জগন্নাথপুর (শালবাগান) মহল্লার জসিম উদ্দিনের বাড়ি থেকে তাদের আটক করে পুলিশ।

কারাদণ্ডপ্রাপ্তরা হলেন, পৌর শহরের থানাপাড়া মহল্লার মৃত লুৎফর মিঞার ছেলে রাজা মিয়া, পূর্বজগন্নাথপুর মহল্লার মৃত মোসলেম উদ্দিনের ছেলে শাহীন আলম, জসিম উদ্দিন ব্যাপারীর ছেলে মামুনুর রশিদ, তৈয়ব আলীর ছেলে জাবেদ আলী ও জোলাগাড়ী গ্রামের ঘকুমু্দ্দিনের ছেলে জিয়ারুল ইসলাম, নুর মোহাম্মদের ছেলে জাহাঙ্গীর আলম এবং পলিগঙ্গাপুর গ্রামের মৃত মনির উদ্দিনের ছেলে আব্দুল লতিফ।

বিষয়টি নিশ্চিত করে বিরামপুর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মো. মনিরুজ্জামান মনির জানান, বুধবার রাতে পৌর শহরের পূর্ব জগন্নাথপুর (শালবাগান) মহল্লার জসিম উদ্দিনের বাড়িতে জুয়া খেলা চলছে এমন সংবাদের ভিত্তিতে জসিম উদ্দিনের বাড়িতে অভিযান চালিয়ে জুয়া খেলার সরঞ্জামাদিসহ সাত জন জুয়াড়িকে আটক করা হয়।

তিনি আরো বলেন, আটককৃতদের ভ্রাম্যমান আদালতে হাজির করলে জুয়া খেলার অপরাধে ছয় জুয়াড়িকে এক মাস ও একজনকে ৭ দিন বিনাশ্রম কারাদণ্ড প্রদান করেন ভ্রাম্যমান আদালতের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট ও উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা পরিমল কুমার সরকার। পরে কারাদণ্ডপ্রাপ্ত সাতজনকে দিনাজপুর জেল হাজতে প্রেরণ করা হয়েছে বলেও জানান তিনি।