ছবি: প্রতীকী

নিউজ ডেস্ক: বাড়ির পাশের বিলে শাক তুলতে গিয়ে বনপাড়া বেগম রোকেয়া বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের অষ্টম শ্রেণির ছাত্রী (১৫) ধর্ষণের শিকার হয়েছে। এমন ঘটনা ঘটেছে নাটোরের বড়াইগ্রাম উপজেলাযর খদ্দকাছুটিয়া গ্রামে।

রোববার (২১ জুন) রাতে এই ঘটনায় রফিক (৩৫) ও সিদ্দিক (৩৭) নামে দুইজনের বিরুদ্ধে বড়াইগ্রাম থানায় মামলা করেছেন স্কুলছাত্রীর মা। অভিযুক্ত রফিক (৩৫) বনপাড়া পৌরসভার কালিকাপুর বেরপাড়া গ্রামের বাদশার ছেলে এবং সিদ্দিক (৩৭) একই এলাকার মান্নানের ছেলে। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন বড়াইগ্রাম থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) দিলিপ কুমার দাস

বড়াইগ্রাম থানার সেকেন্ড অফিসার এসআই সামসুল ইসলাম জানায়, ১৯ জুন (শুক্রবার) ধর্ষণের শিকার ওই স্কুলছাত্রী খদ্দকাছুটিয়া গ্রামে তার বাড়ির পাশে পোরাবাড়ী বিলে শাক তুলতে যায় এমন সময় অভিযুক্ত রফিক ও তার সহযোগী সিদ্দিক ঐ স্কুলছাত্রীকে দেশীয় অস্ত্র দিয়ে ভয়ভীতি দেখিয়ে পাশের ভুট্টা ক্ষেতে নিয়ে যায়। সেখানে রফিক ঐ স্কুল ছাত্রীকে জোর করে ধর্ষণ করে এবং সিদ্দিক ধর্ষণ করার পূর্বেই মেয়েটি চিৎকার কান্নাকাটি করতে থাকলে অভিযুক্তরা তাকে ফেলে পালিয়ে যায়। পরে রোববার রাতে মেয়ের মা এ ঘটনায় রফিক ও সিদ্দিক নামে দুইজনের বিরুদ্ধে বড়াইগ্রাম থানায় মামলা দায়ের করেন।

বিষয়টি নিশ্চিত করে বড়াইগ্রাম থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) দিলিপ কুমার দাস বলেন, এ ঘটনায় নির্যাতিতার মা বাদী হয়ে থানায় মামলা দায়ের করেছেন। অভিযুক্ত দুই আসামিকে গ্রেফতারে পুলিশের অভিযান অব্যাহত রয়েছে। এছাড়া ভিকটিমের ডাক্তারি পরীক্ষা-নিরীক্ষার প্রক্রিয়া চলছে বলেও জানান তিনি।