নিউজ ডেস্ক: সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে লাইভে এসে বিশ্বসেরা অলরাউন্ডার সাকিব আল হাসানকে হত্যার হুমকিদাতা সেই মহসিন তালুকদারকে গ্রেফতার করেছে র‌্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়ন (র‌্যাব)। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন র‌্যাব-৯’র এএসপি কামরুজ্জামান।

মঙ্গলবার (১৭ নভেম্বর) সকালে তাকে সুনামগঞ্জ থেকে গ্রেফতার করা হয়েছে। এর আগে সোমবার রাত ১২টার দিকে সিলেট সদর উপজেলার টুকেরবাজার শাহপুর তালুকদারপাড়ায় অভিযুক্ত মহসিন তালুকদারের বাড়িতে যান র‌্যাব-৯ ও পুলিশের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা। এ সময় তারা মহসিনের স্ত্রী-সন্তানদের জিজ্ঞাসাবাদ করেন।

বিষয়টি নিশ্চিত করে র‌্যাব-৯’র এএসপি কামরুজ্জামান বলেন, ‌কিছুক্ষণ আগে সাকিব আল হাসানকে হুমকিদাতা মহসিন তালুকদারকে দক্ষিণ সুনামগঞ্জ থেকে গ্রেফতার করা হয়েছে। তাকে এখন সিলেটে নিয়ে আসা হচ্ছে। পরবর্তীতে বিস্তারিত জানাবো।

এছাড়া মহসিন তালুকদারের বিরুদ্ধে জালালাবাদ থানায় ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে মামলা হয়েছে। তার প্রদর্শিত দেশীয় অস্ত্র উদ্ধারের চেষ্টা চলছে বলেও জানান সিলেটের জালালাবাদ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা অকিল উদ্দিন।

এর আগে এর আগে গত শনিবার দিবাগত রাত ১২টার পর যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুক লাইভে রাম দা দেখিয়ে সাকিব আল হাসানকে হত্যার হুমকি দেন মহসিন তালুকদার। ফেসবুকে এ হুমকি দেন তিনি। ‘Mohsin Talukdar‘ নামে নিজের অ্যাকাউন্ট থেকে তিনি ভিডিওটি প্রচার করেন।

সম্প্রতি কালীপূজা উপলক্ষে কলকাতা গিয়ে এক অনুষ্ঠান উদ্বোধন করায় সাকিবের প্রতি বিক্ষুব্ধ হয়ে তাকে কুপিয়ে-টুকরো করে হত্যার হুমকি দেন মহসিন। ভিডিওতে সাকিবকে অকথ্য ভাষায় গালিগালাজও করেন তিনি।

এরপর রোববার ভোর ৬টা ৪ মিনিটে আবার একটি লাইভ ভিডিওতে হাজির হন মহসিন। তবে রাতের উত্তেজিত ভিডিওর জন্য দুঃখ প্রকাশ করে সাকিব আল হাসানকে জাতির উদ্দেশে ক্ষমা চাওয়ার আহ্বান জানান তিনি। এ সময় তিনি বলেন, কারও চাপে এখন এ ভিডিওটি করছেন না, বরং সাকিবকে একটা সুযোগ দেওয়ার জন্য এবং তার মতো বাকি সব সেলিব্রেটিদের সঠিক পথে চলার বার্তা দিতে আবার লাইভ করছেন তিনি।

পরের দিন সোমবার বিকেল সোয়া পাঁচটায় ওই আইডিতে গিয়ে দেখা যায়, হত্যার হুমকি দেওয়া ভিডিওটি সরিয়ে ফেলা হয়েছে। তবে তার পরের ভিডিওটি এখনো রয়েছে।